খালেদা জিয়ার মনোনয়ন পত্র কারাগারে পৌঁছেছে

নাজিমুদ্দিন রোডের পুরনো ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দী সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসন অসুস্থ বেগম খালেদা জিয়ার মনোনয়পত্র বাহক মারফত কারাগারে পাঠানো হয়েছে। আজকালের মধ্যে তার সই নিয়ে পুনরায় সংশ্লিষ্ট দফতরে পাঠানোর কথা রয়েছে।

সুত্রে জানা গেছে, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে নয়া পল্টনের দলীয় কার্যালয় থেকে কারাবন্দী বিএনপি চেয়ারপারসনের পক্ষে একাধিক আসনে নির্বাচনের জন্য মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করা হয়। নিয়ম অনুযায়ী কারাবন্দী কোন আসামীর মনোনয়নপত্রে সই নিতে হলে সংশ্লিষ্ট জেলার জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের মাধ্যমে কাগজপত্র কারাগারে পাঠাতে হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সুত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরের পর ঢাকার জেলা প্রশাসক কার্যালয় থেকে খালেদা জিয়ার মনোনয়নপত্রের যাবতীয় কাগজপত্র ঢাকা কেন্দ্রীয় কারা সংশ্লিষ্ট দফতরে বাহকের মাধ্যমে পাঠানো হয়। কারা কর্তৃপক্ষ সেই কাগজপত্র যাচাই বাছাই করে দেখবেন। তারপর সই নেয়ার জন্য খালেদা জিয়ার কাছে পাঠানো হবে। তার কাছ থেকে সই নেয়া হলে এরপরই সেটি কারাকর্তৃপক্ষ আবার জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে পাঠিয়ে দেবে।

বৃহস্পতিবার কারা সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা  বলেন, খালেদা জিয়ার নামে ঢাকা জেলা প্রশাসক কার্যালয় থেকে মনোনয়নপত্রের কাগজপত্র আনতে একজন বাহক জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে গেছে। এখন আমি অফিসে নেই। বিকেলের মধ্যে কারাগারে চলে আসার কথা রয়েছে। সেটি আসলে আমরা আগে তা যাচাই বাছাই করে দেখবো। নিয়ম মোতাবেক ঠিক থাকলে উনার (খালেদা জিয়া) কাছে সই নিতে যাবো। শুধু কারা কর্মকর্তারা তার স্বাক্ষর নিতে পারবেন। সই হওয়ার পর কারা প্রশাসন থেকে সত্যায়িত সিল, সই দিয়ে আবার আমরা মনোনয়নপত্র ঢাকা জেলা প্রশাসক এর কার্যালয়ে পাঠিয়ে দেবো। এক প্রশ্নের উত্তরে ওই কর্মকর্তা বলেন, খালেদা জিয়ার কাছ থেকে মনোনয়নপত্রে কাল অথবা পরশু সই নেয়া হতে পারে।

বৃহস্পতিবার রাতে বিএনপি চেয়ারপারসন কার্যালয়ের দায়িত্বশীল এক নেতা এ প্রতিবেদককে বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সাবেক যুগ্ন সচিব বিজন কান্তি সরকার বুধবার ঢাকা জেলা প্রশাসকের সাথে সাক্ষাত করে ৩টি মনোনয়নপত্র ও আনুষাঙ্গিক কাগজপত্রাদি দিয়ে এসেছেন।

 

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।