ভোলায় ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে কটুক্তির কারনে মামলা

ভোলায় ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে কটুক্তির কারনে মামলা

মো. সাইফুল ইসলাম#ভোলা:নারী সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টিকে কটূক্তির অভিযোগে সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে এবার ভোলায় মানহানির মামলা করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে ভোলা জেলা যুব মহিলা লীগের আহ্বায়ক খাদিজা আক্তার স্বপ্না বাদী হয়ে চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলাটি দায়ের করেন।আদালতের বিচারক শরীফ মোহাম্মদ ছানাউল হক মামলাটি গ্রহণ করে অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে জুডিসিয়ালি তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। আগামী ২৫ অক্টোবর তদন্ত রিপোর্ট জমা দিতে বলা হয়েছে।মামলায় উল্লেখ করা হয়, গত ১৬ অক্টোবর একাত্তর টিভির একাত্তর জার্নাল নামে একটি টকশোতে প্রখ্যাত সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টিকে অবমাননা করে বক্তব্য দেন মইনুল হোসেন। যারমাধ্যমে নারীদের মর্যাদাকে হেয় করা হয়েছে। তার বক্তব্য মানহানিকর। মামলায় ৫০ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ দাবি করা হয়েছে।সঙ্গত, ১৬ অক্টোবর একাত্তর টেলিভিশনের টক শো ‘একাত্তরের জার্নাল’ এ ব্যারিস্টার মইনুলহোসেনকে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি প্রশ্ন করেন, ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে আপনি যে হিসেবে উপস্থিত থাকেন- আপনি বলেছেন আপনি নাগরিক হিসেবে উপস্থিত থাকেন। কিন্তু সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই বলছেন, আপনি জামায়াতের প্রতিনিধি হয়ে সেখানে উপস্থিত থাকেন।’মাসুদা ভাট্টির এই প্রশ্নে রেগে গিয়ে মইনুল হোসেন বলেন, ‘আপনার দুঃসাহসের জন্য আপনাকেধন্যবাদ দিচ্ছি। আপনি চরিত্রহীন বলে আমি মনে করতে চাই। আমার সঙ্গে জামায়াতের কানেকশনের কোনো প্রশ্নই নেই। আপনি যে প্রশ্ন করেছেন তা আমার জন্য অত্যন্ত বিব্রতকর।’পরে ওই বক্তব্যকে কেন্দ্র করেরোববার সকালে ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম আসাদুজ্জামান নূরের আদালতে সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি বাদী হয়ে মামলা করেন। ওই মামলায় ব্যারিস্টার মইনুলের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত।অপরদিকে মইনুলের একই বক্তব্যকে কেন্দ্র করে জামালপুর ও কুড়িগ্রামে তার বিরুদ্ধে আরও দুটি মানহানির মামলা করা হয়েছে।তবে ঢাকা ও জামালপুরের মামলা হাইকোর্ট থেকে আগাম জামিন পানব্যারিস্টার মইনুল। আর কুড়িগ্রামের মামলায় হাইকোর্টে জামিনের আবেদন করেছেন তিনি। এছাড়াও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তার বিরুদ্ধে আরেকটি মামলা হয়েছে। এবার ভোলায় ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা হলো।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।