কবি নজরুল সরকারি কলেজ শিক্ষক-আবাসন সংকটসহ সব সমস্যা নিরসন করা হবে-শিক্ষামন্ত্রী 

কবি নজরুল সরকারি কলেজ

শিক্ষক-আবাসন সংকটসহ সব সমস্যা নিরসন করা হবেÑ শিক্ষামন্ত্রী

 

ক্যাম্পাস প্রতিনিধি:

রাজধানীর সবচেয়ে পুরাতন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কবি নজরুল সরকারি কলেজে পরিবহন, শিক্ষক, একাডেমিক ভবন নির্মাণ এবং আবাসন সংকটসহ সব সমস্যা সমাধান করার আশ^াস দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

বুধবার বেলা ১১টায় কলেজে ক্যাম্পাসে ৩০ফিট দেওয়ালে ভাস্কর জাহানারা পারভীনের তৈরি গ্রানাইট পাথরে রিলিপ শিল্প মধ্যমে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণের ভাস্কর্য ‘মুক্তি সোপান’ উদ্ধোধন করে তিনি এসব কথা বলেন।

এর আগে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর কবি নজরুল সরকারি কলেজের চৌকস বিএনসিসি ক্যাডেটরা মন্ত্রীকে গার্ড অব অনার প্রদান করেন। এছাড়াও কলেজের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান শিক্ষকরা।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, কলেজের পাশে পড়ে থাকা পরিতাক্ত ডাফরিন হলের জায়গায় বহুতল বভন নির্মাণ করে থানা শিক্ষা অফিসকে ২টি ফ্লোর এবং বাকি ফ্লোরগুলো কলেজকে দেয়া হবে। এছাড়াও কলেজে ১০তলা ভবন নির্মাণের জটিলতা নিরসন করে দ্রুত কাজ শুরু করার আশ^াস দেন তিনি। এর বাইরেও কলেজের পাশে পড়ে থাকা পরিতক্ত জায়গায়গুলোতে একাডেমিক ভবন বা হল নির্মাণ করার কথাও বলেন মন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, কবি নজরুল সরকারি কলেজের শহীদ শামসুল আলম ছাত্রাবাসটিকে সংস্কার এবং দখল হয়ে যাওয়া জায়গাগুলো পুনরুদ্ধার করে বহুতল হল নির্মাণ করা হবে। এসময় কলেজের শিক্ষার্থীদে যাতায়াত সমস্যা সমাধানে পরিবহন সংকট নিরসনের কথাও বলেন তিনি।

ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়েরে অধিভুক্ত ৭কলেজের শিক্ষার মান বৃদ্ধি এবং শিক্ষক সংকটসহ বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে কলেজগুলোর অধ্যক্ষদের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, এসকল সমস্যা সমাধানে কাজ করে যাচ্ছে সরকার।

দেশে এই প্রথম কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ গ্রানাইট পাথরে খোদাই করে ৩০ফিট দেওয়ালে ভাস্কর্য হিসেবে তুলে ধরায় কলেজের অধ্যক্ষকে অভিনন্দন জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ৭ই মার্চের ভাষণ ইউনেস্কো থেকে স্বীকৃতি পাওয়ার পর বিশে^র দরবারে শ্রেষ্ঠ ভাষণ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়।

এসময় তিনি ছাত্র-ছাত্রীদের নৈতিক-শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে শিক্ষাথীদের মাদক জঙ্গি-সন্ত্রাসবাদ থেকে দূরে থাকার আহ্বান করেন ।

কবি নজরুল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক আই কে সেলিম উল্লাহ খোন্দকারের সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন, কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা অধিদপ্তরের সচিব মুনশী শাহাবুদ্দিন আহমেদ, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর ড. সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক, কলেজের উপাধ্যক্ষ ড. খালেদা নাসরীন ও শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক অধ্যাপক মুহাম্মদ আকবর হুছাইন। এছাড়া কবি নজরুল সরকারি কলেজের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাঈনুল হাওলাদার কলেজের বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে বক্তব্য রাখেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বিভিন্ন কলেজের অধ্যক্ষগন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।