প্রধানমন্ত্রীর কাছে মা’কে বাঁচাতে ঢাবি শিক্ষার্থীর আকুতি

পৃথিবীর অমূল্য সম্পদ মাকে বাঁচাতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানিয়েছেন এক দরিদ্র মায়ের সন্তান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শিক্ষার্থী তারেক। সব সন্তান চায় তার মা যেন তার পাশে থাকুক জীবন ভর। পিতা-মাতা আমাদের ছেড়ে চলে যায় যদি অর্থের অভাবে তখন আর চোখের পানি ধরে রাখা যায় না।

সহায় সম্বল যা কিছু ছিল সবকিছু উজাড় করে দিয়ে এখন নিঃস্ব হয়ে অন্যের সাহায্যের দিকে তাকিয়ে আছি আমরা। এখন একটাই প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে ১৫ লাখ টাকার জন্য মা কে বাঁচানো যাবেনা? সবার কিঞ্চিৎ সাহিত্যেই আমরা ফিরে পাবো আমাদের মাকে।

জীবনের সঞ্চিত সব অর্থ ব্যয় করে এখন আর কি করবো ভেবে পাচ্ছিনা আমরা। তাড়াতাড়ি যদি মাকে অপারেশন না করানো যায় তাহলে ঘটে যেতে পারে মহাবিপদ।

আমাদের দেশরত্ন, মাদার অব হিউমেনিটি, বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে বিনীত নিবেদন আপনি একটু সুনজর দিন। আমাদের দিকে তাকান। আপনিও মা হারা বাবা হারা। আপনি আমাদের দরদ সহজেই বুঝবেন।

সেইসাথে কিডনি ডেমেজ মায়ের সুচিকিৎসার জন্য সব শ্রেণির হৃদয়বান মানুষদের নিকট জরুরিভাবে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিতে আকুল আবেদন জানাচ্ছি। আপনাদের জ্ঞাতার্থে জানাচ্ছি, আমি তারেক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) দর্শন বিভাগের ১ম বর্ষের ছাত্র।

আমার মা অনেক দিন থেকেই অসুস্থ। হঠাৎ করে তার অবস্থা খারাপ হতে শুরু করলে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে ডাক্তার পরীক্ষা করে জানান তার দুটি কিডনীই নষ্ট হয়ে গেছে। এটা তিন মাস আগের ঘটনা।

তার পর থেকেই কখনো শ্যামলী (ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অব কিডনী ডিজিজেস এন্ড ইউরোলজি) আবার কখনো ধানমন্ডি (গণস্বাস্থ্য নগর হাসপাতাল) রেখে আমার মা’কে প্রতিনিয়ত সাধারণ চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছি।
রোজ ২/৩ রকমের টেস্টিং, দামি ইনজেকশন, ঔষধ-পত্র, সপ্তাহে ২ বার ডায়ালাইসিস সাথে ২ ব্যাগ রক্ত এখন দৈনন্দিন রুটিনে পরিণত হয়েছে। এসবে প্রায় ৩/৪ হাজার হাজার টাকা প্রতিদিনই খরচ করতে হচ্ছে।

বেশ কয়েকজনের কাছ থেকে প্রায় ৩ লক্ষাধিক টাকা ঋণ করে ইতোমধ্যে মায়ের চিকিৎসার পেছনে আমরা খরচ করে ফেলেছি। ডাক্তার বলেছেন খুব দ্রুতই আমার মায়ের কিডনী রিপ্লেস করা না গেলে আমার মা’কে আর বাচাঁনো যাবে না।

বিদেশে নিয়ে অপারেশন করানো গেলে আমার মা ইনশাআল্লাহ ভালো অবস্থায় ফিরে আসতে পারবেন। সে জন্য কমপক্ষে লাখ ১৫ লাখ টাকা লাগতে পারে বলে ডক্টর আমাদের জানিয়েছেন। আমার বাবার আর্থিক অবস্থা এমন যে ‘নুন আনতে পান্তা ফুরোয়’।

এতটাকা জোগাড় করা আমার কৃষক বাবার পক্ষে অসম্ভব। এমতাবস্থায় আমি সকলের কাছে আর্থিক সাহায্য প্রার্থনা করছি। আমার আকুল নিবেদন, “দয়া করে আমার মা’কে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন।”

তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীসহ সমাজের বিত্তবানদের আছে আকুন নিবেদন আপনারা আমার মমতাময়ী মাকে বাঁচাতে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিন।

আর্থিক সাহায্য পাঠাবার মাধ্যমঃ
বিকাশ (আমার) : 01876914018
রকেট (আমার ভাই) : 018381309028

আব্দুল্লাহ আল তারেক
দর্শন বিভাগ, ১ম বর্ষ
সার্জেন্ট জহুরুল হক হল
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।
যোগাযোগ: 01876914018
ফেসবুক: Abdullah AL Tarek
Email: tarekdu1693@gmail.com

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।